1. techcampus24@gmail.com : Tech Campus :
‘অ্যাভাটার’ফেসবুকের নতুন ট্রেন্ড! - Tech Campus
বুধবার, ২৫ নভেম্বর ২০২০, ১১:৪৭ পূর্বাহ্ন
Notice:
Welcome! Website in progress, contact us if you need any kind of website. Thanks

‘অ্যাভাটার’ফেসবুকের নতুন ট্রেন্ড!

  • Update Time: মঙ্গলবার, ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ৬১ Read Times

ফেসবুকের নতুন ট্রেন্ড হয়ে উঠেছে ‘অ্যাভাটার’। ফেসবুক বন্ধু তালিকায় থাকা বেশিরভাগ ব্যবহারকারীদেরই আজ হয়তো ‘অ্যাভাটার’ ছবি আপলোড দিতে দেখেছেন আপনিও।ফেসবুক বলছে, এর মাধ্যমে ব্যবহারকারীরা নিজেদের ভাবভঙ্গি এবং প্রতিক্রিয়া আরও সরাসরি এবং সাবলীলভাবে প্রকাশ করতে পারবেন অন্য বন্ধুদের কাছে।

সিএনএন এর প্রতিবেদন অনুযায়ী, গত বছর পরীক্ষামূলকভাবে বিশ্বের কিছু দেশে অ্যাপল আইওএস অপারেটিং সিস্টেমে প্রথম প্রকাশিত হয় অ্যাভাটার ফিচার। এরপর চলতি বছরের গেল মে মাসে আইওএস চালু হয় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে। সেই সময় ফেসবুক অ্যাপ বিভাগের প্রধান ফিজি সিমি এক পোস্টে বলেছিলেন, এখন বেশিরভাগ ভাব আদান-প্রদান অনলাইনেই হয়ে থাকে। তাই অন্য যেকোন সময়ের থেকে এটা এখন গুরুত্বপূর্ণ যে, ব্যবহারকারীরা যেন ব্যক্তিগতভাবে তাদের প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করতে পারেন।

তবে সম্প্রতি এর সাথে অ্যান্ড্রয়েড প্ল্যাটফর্মকে যুক্ত করে পুরো পৃথিবীতেই চালু করে দেওয়া হয় ফিচারটি। আর বাংলাদেশের ফেসবুক ব্যবহারকারীদের জন্য ফিচারটি এসেছে আরও পরে।‘অ্যাভাটার’ফেসবুকের নতুন ট্রেন্ড!

সাইবার ৭১ এর পরিচালক এবং প্রযুক্তি বিশ্লেষক আব্দুল্লাহ আল জাবের হৃদয় বাংলানিউজকে বলেন, এটা মূলত এক ধরনের ‘ইমোজি’ তৈরির প্ল্যাটফর্ম, আর্টিফিসিয়াল ইমেজ প্রসেসিং প্ল্যাটফর্ম। মানুষের চেহারার সাথে মিলিয়ে এটি করা যায়। এতদিন এটি বিভিন্ন তৃতীয় পক্ষ অ্যাপের মাধ্যমে করা যেত। তবে সেখানে ব্যবহারকারীদের তথ্য নিরাপত্তা সম্পর্কিত ঝুঁকি থাকত। খুব সম্ভব এই সমস্যার সমাধানে ফেসবুক নিজেই এই অ্যাভাটার ফিচার চালু করেছে।

আব্দুল্লাহ হৃদয় আরও বলেন, এটা আরও আগে থেকেই ছিল, সীমিতভাবে। তবে সম্প্রতি এটিকে পুরো পৃথিবী জুড়েই উন্মুক্ত করা হয়েছে। বাংলাদেশের ব্যবহারকারীরা আরও তিন দিন আগে থেকে এটা পাওয়া শুরু করছেন। এ ধরনের ফিচার প্রকাশের পর সব গ্রাহকে মাঝে রোল আউট (ছড়িয়ে পড়তে) কিছুটা সময় লাগে। তাই আজকে এসে এটি বেশ হাইপ তুলেছে এবং ট্রেন্ড হয়ে গিয়েছে।‘অ্যাভাটার’ফেসবুকের নতুন ট্রেন্ড!

ফিচারটি বিশ্লেষণ করে দেখা যায়, অনেকটা স্ন্যাপচ্যাটের বিট-মোজি এর মতে কাজ করে অ্যাভাটার। নিজের ছবি দিয়ে বানানো অ্যাভাটার পরবর্তীতে ইমোজি আকারেও ব্যবহার করা যাবে। এর ফলে সাধারণভাবে অ্যাভাটার ছবি টাইমলাইনে আপ করার পাশাপাশি কমেন্ট এবং মেসেঞ্জারেও শেয়ার করা যাবে।

নিজের অ্যাভাটার তৈরিতে ফেসবুক অ্যাপের ডান দিকের উপরে থাকা তিনটি সমান্তরাল লাইন চিহিত আইকনে ক্লিক করতে হবে। সেখানে ‘সি মোর’ অপশনে পাওয়া যাবে অ্যাভাটার। যাদের অ্যাপে এখনও এটি আসেনি তারা অন্যের প্রকাশিত অ্যাভাটার ছবির নিচে থাকা লিংক দিয়েও করতে পারেন। অ্যাভাটার অপশনে গেলে নিজের অ্যাভাটার তৈরি জন্য নানান অপশন ও ফিচার তৈরির সুযোগ রেখেছে ফেসবুক।

Share This Post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Read More News in This Category .....
©কপিরাইট 2020
Power by .Mahedi Hasan